পাতা:কাহিনী-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/৫৮

এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।
৫৫
সতী


অমাবাই


হে নির্দয়, আছে মৃত্যু, আছে যমরাজ,
পিতা হতে স্নেহময়, মুক্তদ্বারে যাঁর
আশ্রয় মাগিয়া কেহ ফিরে নাই আর।


বিনায়ক রাও


মৃত্যু? বৎসে, হা দুর্বৃত্তে, পরম পাবক
নির্মল উদার মৃত্যু- সকল পাতক
করে গ্রাস, সিন্ধু যথা সকল নদীর
সব পঙ্করাশি। সেই মৃত্যু সুগভীর
তাের মুক্তি গতি। কিন্তু, মৃত্যু আজ না সে,
নহে হেথা। চল্‌ তবে দূর তীর্থবাসে
সলজ্জ স্বজন আর সক্রোধ সমাজ
পরিহরি, বিসর্জি কলঙ্ক ভয় লাজ
জন্মভূমিধূলিতলে। সেথা গঙ্গাতীরে
নবীন নির্মল বায়ু- স্বচ্ছ পুণ্যনীরে
তিন সন্ধ্যা স্নান করি, নির্জন কুটিরে
শিব শিব শির নাম জপি শান্তমনে,
সুদূর মন্দির হতে সায়াহ্নপবনে
শুনিয়া আরতিধ্বনি, একদিন কবে
আয়ুশেষে মৃত্যু তােরে লইবে নীরবে
পতিত কুসুমে লয়ে পঙ্ক ধুয়ে তার
গঙ্গা যথা দেয় তারে পূজা-উপহার
সাগরের পদে।