প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:গল্পগুচ্ছ (চতুর্থ খণ্ড).pdf/৮০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ল্যাবরেটরি y&సి বাড়িয়ে-বলা লেখা পড়তে লজ্জা করবে আমার ।” “ভাষার তুমি মস্ত সমজদার কিনা। এ তো কেমিস্ট্রি ফরমলা নয়—খত খত কোরো না, মুখস্থ করে যাও। জান এটা লিখেছেন আমাদের সাহিত্যিক প্রমদা রঞ্জনবাব ?" * f “ঐ-সব মস্ত মস্ত সেপ্টেনস আর বড়ো বড়ো শব্দগুলো মুখস্থ করা আমার পক্ষে ভারি শক্ত হবে।" “ভারি তো শক্ত ! তোমার কানের কাছে আউড়ে আউড়ে আমার তো সমস্তটা মুখস্থ হয়ে গেছে— ‘আমার জীবনের সবোত্তম শভ মহাতে জাগানী সভা আমাকে যে অমরাবতীর মন্দারমাল্যে সমলংকৃত করিলেন—গ্র্যানড ! তোমার ভয় নেই, আমি তো তোমার কাছেই থাকব, আস্তে আস্তে তোমাকে বলে দেব।” “আমি বাংলাসাহিত্য ভালো জানি নে, কিন্তু আমার কেমন মনে হচ্ছে সমস্ত লেখাটা যেন আমাকে ঠাট্টা করছে। ইংরেজিতে যদি বলতে দাও কত সহজ হয় : Dcar friends, allow me to offer you my heartiest thanks for the honour you have conferred upon me on behalf of the Jagani Club—the Great Awakener of gun Toši o osso ziTxT-" “সে হচ্ছে না, তোমার মুখে বাংলা যে খুব মজার শোনাবে— ঐ যেখানটাতে আছে— ‘হে বাংলাদেশের তরুণসম্প্রদায়, হে সবাতন্ত্র্যসঞ্চালনরথের সারথি, হে ছিন্নশঙখলপরিকীর্ণ পথের অগ্রণীবন্দ’—যাই বল, ইংরেজিতে এ কি হবার জো আছে ? তোমার মতো বিজ্ঞানবিশারদের মুখে শনলে তরণ বাংলা সাপের মতো ফণা দলিয়ে নাচবে। এখনও সময় আছে, আমি পড়িয়ে নিচ্ছি।” গর্ভার দীঘ দেহকে সিড়ির উপর দিয়ে সশব্দে বহন করে সাহেবি পোশাকে ব্যাঙ্কের ম্যানেজার ব্রজেন্দ্র হালদার মচমচ শব্দে এসে উপস্থিত। বললে, “নাঃ, এ অসহ্য, যখনই আসি নীলাকে দখল করে বসে আছ। কাজ নেই, কম নেই, নীলিকে তফাত করে রেখেছ আমাদের কাছ থেকে কাঁটাগাছের বেড়ার মতো।” রেবতী সংকুচিত হয়ে বললে, “আজ আমার একটা বিশেষ কাজ আছে তাই—” “কাজ তো আছে, সেই ভরসাতেই তো এসেছিলাম ; আজ তুমি মেম্বরদের নেমন্তশ্ন করেছ, ব্যস্ত থাকবে মনে করে আপিসে যাবার আগে আধ ঘণ্টাটাক সময় করে নিয়ে তাড়াতাড়ি এসেছি। এসেই শনছি এখানেই উনি পড়েছেন কাজে বাঁধা । আশচয*! কাজ না থাকলে এইখানেই ওঁর ছটি, আবার কাজ থাকলে এইখানেই ওঁর কাজ। এমন নাছোড়বান্দার সঙ্গে আমরা কেজো লোকেরা পাল্লা দিই কী করে। sofas, is it fair?” পারেন না। উনি কাজ আছে বলে এসেছেন এটা বাজে কথা, না এসে থাকতে পারেন না বলেই এসেছেন এটাই একটা শোনবার মতো কথা এবং সত্যি কথা। আমার সমস্ত সময় উনি দখল করেছেন ওঁর জেদের জোরে। এই তো ওঁর পৌরষে। তোমাদের সবাইকে ঐ বাঙালের কাছে হার মানতে হল।” w