পাতা:চিঠিপত্র (সপ্তম খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১২৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


סא"ל ২৮ এপ্রিল ১৯২৩ હૈં কলিকাতা কল্যাণীয়াসু কিছুকাল আমি সিন্ধু, কাঠিয়াবাড়, বম্বাই প্রভৃতি নানাস্থানে ভ্রমণ করছিলুম। খুব ক্লান্ত হয়ে ফিরে এসেচি। এখন শিলং পাহাড়ে কিছুকাল বিশ্রামের জন্যে যাব ঠিক করেচি। আমাদের বিদ্যালয়ের ছুটি হয়ে গেছে। জ্যৈষ্ঠমাসে যদি সেখানে কিছুদিন গিয়ে থাকতে চাও তাহলে স্থানের অভাব হবে না। তুমি সন্তোষ মজুমদারকে জান, তাকে চিঠি লিখলেই জায়গার ব্যবস্থা করে দেবেন। কিন্তু জ্যৈষ্ঠমাসে শাস্তিনিকেতনে অসহ গরম হয়, প্রায় পশ্চিম প্রদেশের গরমের মত । তুমি শান্তি লাভ কর, আনন্দ লাভ কর এই আমি অন্তরের সঙ্গে কামনা করি । সংসারের অতি ক্ষুদ্র পরিধির মধ্যে একান্ত বদ্ধ আছ বলে আপনার ভিতরকার সাস্তুনার পথ খুজে পাও না । যে বৃহৎ ক্ষেত্রে মানুষ পুর্ণভাবে আপনাকে দিয়ে ফেলতে পারে সেইখানেই মানুষ বঁাচে । যেখানে সম্পূর্ণ আত্মনিবেদনের বাধা সেইখানেই মানুষ বন্দী । ইতি ১৫ বৈশাখ ১৩৩০

  • শুভানুধ্যায়ী

শ্রীরবীন্দ্রনাথ ঠাকুর Y S 8