পাতা:চিঠিপত্র (সপ্তম খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১৩৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চান— যে কবি সে কেবল মনের ভাবকে সাজিয়ে দিয়ে চলে যায়, গতিয়ে দেবার গরজ তার নেই। পথিক তার উপরে একবার চোখ বুলিয়ে নিজের পথেই চলে যায়, যদি একটুখানি খুসি হয়ে যায় তাহলেই হোলো । তোমার চিঠি পড়ে মনে হচ্চে, তোমাকে কিছু আনন্দ দিয়ে থাকব— সেটাতে হয় ত ধরে রাখবার মত কিছুই নেই– সে যেন এক পসলা বৃষ্টির মত, পান করবার পাত্রভরা তৃষ্ণার জলের মত নয়। তোমার প্রয়োজনের স্থায়ী সম্বল যদি তোমাকে দিতে পারতুম তবে আজ তোমার শক্তির অবসানের মুখে তাই তোমার পাথেয় হতে পারত— কিন্তু খেলা নিয়েই যার চির জীবনের কারবার তার হাতে কেবল রঙের জিনিষই থাকে, মূল্যের জিনিষ কিছুই থাকে না – তবু আমি জানি তোমার নিজের ভিতরেই যে শক্তি আছে, অনেকদিন থেকে সেই শক্তিই তোমার পথ ভিতরে ভিতরে কেটে আস্চে, সুখে দুঃখে আশায় নৈরাশ্যে । তোমার সেই শক্তি আজ পরম সার্থক হোক এই আমার অন্তরের কামনা । ইতি ৪ বৈশাখ ১৩৩৩ শ্রীরবীন্দ্রনাথ ঠাকুর У 3. o