পাতা:প্রবন্ধ পুস্তক-বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/৩৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


२b' জ্ঞান ৷ যে পদার্থ প্রত্যক্ষ হয়, তদ্বিষযে আমাদিগের জ্ঞান জন্মে, এবং তদ্বতিরিক্ত বিষয়ের জ্ঞানও সুচিত হয়। আমি রুদ্ধদ্বার গৃহমধ্যে শয়ন করিয়া আছি, এমত সময়ে মেঘের ধ্বনি শুনিলাম, ইহাতে শ্রাবণ প্রত্যক্ষ হইল। কিন্তু সে প্রত্যক্ষ ধ্বনির, মেঘের নহে। মেঘ এখানে আমাদের প্রত্যক্ষের বিষয় নহে । অথচ আমরা জানিতে পারিলাম যে আকাশে মেঘ আছে। ধ্বনির প্রত্যক্ষে মেঘের অস্তিত্ব জ্ঞান হইল কোথা হইতে ? আমরা পূৰ্ব্বে পূৰ্ব্বে দেখিয়ছি, আকাশে মেঘ ব্যতীত কখন ঐৰূপ ধ্বনি হয় নাই। এমন কখনও ঘটে নাই যে, মেঘ নাই, অথচ ঐন্ধুপ ধ্বনি শুনা গিয়াছে। অতএব রুদ্বদ্বার গৃহ মধ্যে থাকিয়াও আমরা বিনাপ্রত্যক্ষে জানিলাম যে আকাশে মেঘ হইয়াছে। ইহাকে অনুমিতি বলে। মেঘধ্বনি, আমর প্রত্যক্ষে জানিয়াছি, কিন্তু মেঘ অনুমিতির দ্বারা। মনে করঐ রুদ্ধদ্বার গৃহ অন্ধকার,এবং তুমিযেখানে একাকী আছ। এমত কালে তোমার দেহের সহিত মনুষ্যশরীরের স্পর্শ অনুভূত করিলে। তুমি তখন কিছু না দেখিয়া, কোন শব্দও না শুনিয়া জানিতে পারিলে যে গৃহমধ্যে মমুয্য আমিয়াছে। সেই স্পৰ্শজ্ঞান, ত্বাচ প্রত্যক্ষ ; কিন্তু গৃহমধ্যে মন্তব্য জ্ঞান অনুমিতি। ঐ অন্ধকারগুহে তুমি যদি যুথিকা পুষ্পের গন্ধ পাও, তবে তুমি বুঝিবে, যে গৃহে যুথিকা পুষ্প আছে ; এখানে গন্ধই প্রত্যক্ষের বিষয় ; পুষ্প অনুমিতির বিষয় । মৃত্যুধ্য অল্প বিষয়ই স্বয়ং প্রত্যক্ষ করিতে পারে। অধিকাংশই অনুমিতির উপর নির্ভর করে। অনুমিতি সংসার চালাইতেছে। আমাদিগের অনুমানশক্তি না থাকিলে, আমরা প্রায়ু কোন কাৰ্য্যই করিতে পারিতাম না। বিজ্ঞান, দর্শনাদি, অকুমানের উপরেই নিৰ্ম্মিত।