প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:বাংলাদেশ কোড ভলিউম ২৮.djvu/৩১৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


\○○8 ব্যাংক-কোম্পানী আইন, ১৯৯১ o ് § * e$ (৬) উপ-ধারা (৪) এর অধীন প্রদত্ত আদেশের ব্যাপারে হাইকোর্ট বিভাগ একটি সার্টিফিকেট প্রদান করিবে, যাহা ডিক্ৰী জারীসহ অন্য সকল ক্ষেত্রে ডিক্রির প্রত্যয়নকৃত অবিকল অনুলিপি বলিয়া গণ্য হইবে এবং উহাতে নিম্নবর্ণিত বিষয়ের উল্লেখ থাকিবে, যথা : (ক) মঞ্জুরীকৃত প্রতিকার; o (*) পেরেছি উক্ত প্ৰতিক মঞ্চ বা ইলেই পরে - ও অন্যান্য বিবরণ; § Q (গ) মঞ্জুরীকৃত খরচের পরিমাণ; Q (ঘ) কোন তহবিল হইতে এবং কাহার দ্বারা ও কি পরিমাণে উক্ত খরচ প্রদান করা হইবে তৎবিষয়; o (৭) দেনাদারদের তালিকা চূড়ান্ত করার সময় বা উহার পূর্বে বা পরে যে അ (ক) সরকারী অবসায়কের আবেদনক্রমে কোন দেনাদারের ব্যাপারে ব্যাংক সংরক্ষণ এবংক্রির জন্য দেশ প্রদান; - (খ) দফা (ক) তে উল্লিখিত আদেশ কার্যকর করার জন্য সরকারী (৮) হাইকোর্ট বিভাগ কোন ঋণের ব্যাপারে কোন আপোষ মীমাংসা অনুমােদন করতে এবংকোন ঋণ কিস্তিতে পরিশোধের আদেশ দিতে পারবে। (৯) কোন ব্যক্তির অনুপস্থিতিতে একতরফাভাবে দেনাদারের তালিকা চূড়ান্ত করা হইলে, উক্ত ব্যক্তি, তালিকার চূড়ান্তকরণ আদেশ প্রদানের ত্রিশ দিনের মধ্যে, তালিকার যে অংশের সহিত তিনি সংশ্লিষ্ট সেই অংশ পরিবর্তন করার জন্য হাইকোর্ট বিভাগের নিকট আবেদন করিতে পরিবেন; এবং হাইকোর্ট বিভাগ যদি এই মর্মে সন্তুষ্ট হয় যে, তিনি যথাযথ কারণে তালিকা চূড়ান্তকরণের তারিখে অনুপস্থিত ছিলেন এবং ব্যাংক-কোম্পানীর দাবীর বিরুদ্ধে তাহার আত্মপক্ষ সমর্থনের মত পর্যাপ্ত যুক্তি রহিয়াছে, তাহা হইলে হাইকোর্ট বিভাগ উক্ত তালিকা পরিবর্তন করিতে পারিবে এবং ঐ বিষয়ে, যেরূপ সংগত তবে শর্ত থাকে যে, হাইকোর্ট বিভাগ, যথাযথ বিবেচনা করিলে, উক্ত ত্রিশ দিন অতিক্রান্ত হইবার পরেও কোন আবেদন বিবেচনা করিতে পারিবে। (১০) এই ধারার কোন কিছুই (ক) কোন তৃতীয় পক্ষের স্বার্থযুক্ত এমন কোন ঋণের প্রতি প্রযোজ্য হইবে না যাহা অস্থাবর সম্পত্তি বন্ধক রাখিয়া গৃহীত হইয়াছে; বা