পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৩১২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


込ペの বাঙ্গালার গান । , কি কাল নিদে এসেছিল তোর! ছ!ধানট—কাওয়ালী। কাল পেয়ে ঘরে এলে কালচোর, গোবিন্দ গুণধাম ! কে জানে তোমার মায়া। নয়ন-অগোচর, করলে মনোচোর, হর হর, হররাধ্য হরি । ধন-জন মায়ু ॥ মরি রে, সে চোর কেমনে ধরি। দীন হীন ভ্রান্ত পামরে দেহু পদছায়া। ா_; দারাদি তনয়, কেহ নয়, এ মিছে প্রণয়,— স্বরট-মল্লার—দীপতাল । দীনে রক্ষ তুমি মোক্ষধাম হে! গাম হে! বল দেখি রে শুক শারি ! শিবের সম্পদ পদ, প্রদানে হর বিপদ, তোরাতে কুঞ্জে ছিলি । নিরাশয়ে নিরাপদ করছে নীরদ কায় । কোন পথে গেল রে আমার, ήμα ΡΡΙ αΉμ " μμ মনোচোরা বনমালী ৷ পিটি অহং—ম । কি দোষে ত্যজিল কান্ত, সে তদন্ত ন জানি। অন্তরে ছিল রে অন্তর্যামী সে চিন্তামণি । অন্তর হইল দিয়ে অন্তরে কালি ৷ ওরে শুক ! আমার আজি কি হই ল, দুখ-সম্পদ ঘুচিল, সুখসাগর শুকাইল, খৃঃখ করে বলি । সুখে ছিলাম শুক ! ল’য়ে কৃষ্ণ-শুকপার্থী, হৃৎপিন্ধুর ভেঙ্গে, সে রাধারে দিল ফাকি,— কে আর শুনবে রজে রাধ রাধা বুলি । ললিল পিন্মিট-এক ভাল । ও কে যায় গে কালে মেবের বরণ কালো রতন রমণীরঞ্জন । মোহন করে মোচন দাশী, বিধুমখে মৃদু হাসি, সই ! আবার কটকে চায়, নাচায় দুটি নমুন-খঞ্জন ৷ নিরর্থি বিদরে প্রাণী, ৰেমেছে চাদবদন খানি, লেগে দারুণ রবির কিরণ গো ; বিধি আমায় সদয় হ’ত কুলের শঙ্গ না থাকিত সই। তবে বসনে ঢার্কিতাম গিয়ে ও বিধু-বদন ॥ দেবকীর দল-দুঃখ নাশিতে এতকালে । প|াজ-থেমটা । কে ডাক মা বলি, বুঝি কুষ্ণধন আমার এলে ॥] : কুংসিতের বেশ দেখে, শাম । এলি তো দুঃখিনীর দুঃখ দেখ রে যদুনন্দন! : ঠেস করে কি কও আমাকে । করেছে নিদয় কংস কর-চরণে বন্ধন,— । ভালো নই, কমল-আঁখি । চক্ষেতে হের রে গোপাল ! বক্ষেতে শিলে ॥ ষ্ঠা হে ! সুন্দরী কি সবাই থাকে ॥ তোরে রেখে যশোদা ভবনে, এমন নয় যে গায় পড়েছি তোর আসার আশ-পবনে, আমার এই রূপটি দেখে, আছিরে জীবনে, গোপাল! এত দু:খানলে; থাকি চুপটি করে মনের সুখে ॥ একি অসম্ভব শুনি নারদের মুখে আমি, । ншнин ще в ভবের বন্ধন মুক্তি কারণ, বাছা তুমি, | प्रश्नप्ले-म९ ।। তবে বন্ধন দশাতে কেন মায়ে দুঃখ দিলে ॥ বিরাজে ব্রজে রাধাগ্রামে। বাছা! বধি জননী জনক, ব্রজে কি সুখজনক, রাধা কোটিচন্দ্র সাজে, কালো জলদেরি বামে ৷ জানি রে যাদব ! যত যতনে ছিলে ;– , , | কিবা নিন্দি কালো জলধর, রূপ রাধার বংশীধর জানে কে সস্তানের মায়া, ন ধরিলে উদরে, নিরধিতে গঙ্গাধর, এলে ব্রজধামে। কিঞ্চিৎ নবনী-অরে, ধবলী-পুচ্ছ-ডোরে, পুরাইতে মন-সাধ, ভাবে ব্ৰহ্মা গদগদ, বঙ্গলে যশোদা কর-কমল-যুগলে । পুজিল জ্ঞাবিন্দ-পদ, চন্দন-কুসুমে।