পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৬৫৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গিরিশচন্দ্র রোব । জানিনা কে বা, এসেদিকোথায়, কেন বা এসেছি, কে নিয়ে যায়। কত আসে যায়ুগ্লসে কাদে গায়, এই আছে yż ७ॐ नाहे ॥ * ...? ه"ޗުރު * কি কা এসেছি কি কাজে গেল, 夕

  • *

কে%ন কেমন কি খেলা হ’ল, ,%হের বারি, বহিতে কি পরি, বাই, যাই কোথা কুল কি নাই। করহে চেতন, কে আছ চেতন, কত দিনে আর ভাঙ্গিবে স্বপন, যে আছ চেতন, ঘুমায়ে না আর, দারুণ এ ঘোর নিবিড় আঁধার, করতম নাশ, হও হে প্রকাশ, তোমা বিনা আর নাহিক উপায়, তব পদে তাই শরণ চাই ॥ বেহাগ—ৰৎ । আমার এ সাধের বীণা,যত্বে গাধা তারের হার। বে যত্ব জানে, বাজায় বীণে,উঠে মুধা অনিবার ॥ তানে মানে বাধলে ভুরি, তারে শতধারে বয় মাধুরী, বাজে না আলগা তীরে, টানে ছিড়ে কোমল তার ॥ সাধের বীণার মরম যে জানে, সে ত বঁধে না টানে, দীনের কথা মধুর গাধা শুনে সে প্রণে ; যে জোর করে ডোর বাধবে টেনে, বীণা নীরব রবে তার ॥ পরজ-কালেংড়ামিশ্র—খেম্টা। বস্লো অলি চুলে ফুলের গায়। দইলো প্রাণ শিউরে উঠে, মলয়া-হাওয়ায় ॥ কাকিলে কুহ বলে, উজ প্রাণ হ হ স্থলে ; খেলে লো চকোর-টাদে, প্রাণ ধীরে টায় সে কোথায় ॥ ৭৬১ সাওন-মিশ্র-একতাল।। স্থল জল ব্যোম, তপন, পবন, গাও গভীর তানে । জাগ কুহুমলত, শাখী পাখী গাও নবীন প্রাণে ॥ আজি আনন্দ উৎসব। গেল কুস্বপন, পোহাল যামিনী, জ্ঞান-অরুণ হাসে, দীন হীন তরে দীন উদাসী,এক তরুতলে বাসে সতত মত্ত উচ্চ তত্ত্ব নিত্য-সত্য দানে। চিত চকোর, রহ বিভোর, চরণে সুধাপানে ॥ আজি আনন্দ-উৎসব। পরজ-মিশ্র—পোস্ত । মা, তোমার এ কোন দেশী বিচার। আমি ডেকে বেড়াই পথে পথে, দেখা দাওনা একটী বার। মদ খেয়ে বেড়াস্ ধেয়ে, কে জানে কেমন মেয়ে, কোলের ছেলে দেখলি নি চেয়ে ; আমিও মাংবো মদে, মা বলে ডকৃবো না আর ॥ ( করিৰ মুর) বিভাব-মিশ্র—জাড়ধেমূট। রাণী-মুদিনীর গলি, সরাপের দোকান খালি যত চাও তত পাবে, পয়সা নেবে না। ঠোঙা ক'রে শালপাতাতে, চাট দেবে হাতে হাতে, তেলমাখা মটরভাজা—মোলাম বেদান চুচ্চরে হয়ে মনে, এলেচুলে কোমর বেঁধে, হরম্বড়া তামাক দেয় সেধে — বাপের বেটী মুনীর মেয়ে, পুণ্ডর বেঁধে দেয় সে পয়ে নাচ গাও যত পায় তার কি ঠিকানা ॥ মুনীির এমৃলি কেত, পড়ে থাকো ৰেখা সেখা, জমাদার পাহারালার নাইকো নিশান৷ اقعے