পাতা:বাঙ্গালীর গান - দুর্গাদাস লাহিড়ী.pdf/৮৪০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


agt; यांणालीझ ञांन । রাগে ত্রিনয়ন অনল সমুজ্বলে, গলে নৃমুণ্ডমালা দোলনী । কণ্ঠানুজ শিরে কবে পদাম্বুজ দিবেন নিজগুণে তারিণী ॥ কলিত কলধৌত রুচি শচীতনয়, তনুকর কত শরৎশশী পতিত, পদ নধরে থরে থর। মরি কি পদ চিত বিনোদ, কোকনদ মদ মর্দন, অথবা শোভ অরুণ আভা জবা কুহুম নিন্দন, জনানন্দ অতি মন্দগতি বারণগতি-বারণ, করিয়ে দর্শন মন মোহিত, মুনি রমণীর। কদলীতরু সদৃশ উরু নিতম্বগুরু, সরুবাট মুঠিতে ধরা যায় আহ, . মরি মরি কি পরিপাটী, পিন্ধন তাহে লাল সাটী, দেখি, মিটেন। লালসাট, হইলে দিঠি, কোটি কোটি কটি নিরর্থি নিরস্তর। যুগল করতল বাল ভাস্কর কিরণ, জিনি তদৃদ্ধে শোভিছে নখে, পুর্ণ দশ নিশামণি নাভি গভীর, কি হ’দর যেন বিকচ সরোজিনী, ঐকণ্ঠ কয় শ্ৰীকণ্ঠ শ্রেণী মরি, মরি কি সুন্দর ॥ கம்யாது দিনেশ গণেশ রমেশ উমেশ, উমা-মা সহিতে ডাক । আগে ভেদজ্ঞান মুঞ্চ, মুখে কাল বঞ্চ, একেপঞ্চ পঞ্চে এক ॥ এক ব্ৰহ্মরূপ সত্যনিরঞ্জন, লোক ভুলাইতে রূপান্তর হন, জ্ঞানপন্থে চক্ষু করিয়ে পতন চেতন হইয়ে দেখ ॥ দিনমণি রূপ ধরে যেই জন, শ্বেত পীতবাস পরে সেইজন, যেই গজানন, সেই পঞ্চানন, কোনজনে হবি বিমুখ। যে জন শ্মশানে শ্লামা মুণ্ডমালী, সেই বৃন্দাবনে গুম বনমালী, জানতে যদি চাহ সাধু পদধূলি, ভক্তি ধূলি গায়ে মাখ ॥ কে নিবি আয়ু বিনামূলে বিমল ভাব কিনসে। একালে আর ও কালে দুইকালে কলে জিনৃসে। মিন্সে হ’ল মাগী নাকি মাগী হল মিন্‌সে; চিনলে পাবি চিন্ময় মুখ চিনসে চিনসে। কণ্ঠের মনোৎকণ্ঠ অতি ভেবে ভেবে ক্ষীণ সে ; যেদিন ভাবের প্রভাব হবে সব দিনের এক দিবসে ॥ আমি আর কিছু ধন চাইন কেবল ঐ চরণ ভিখারী। যে পদবৈভব জানে না বৈভব, ঐ ভবর্ণেব তরণের তরি ॥ যে চরণ করিলে স্মরণ, ঘটে না ঘটে না অকালে মরণ, দাওহে চরণ অধম তারণ, বারিদবরণ বংশীধারি ॥ চাই নাহে অতুল্য রাজ সিংহাসন, চাই না হে অমূল্য বসন ভূষণ, যেধন, হৃদয়ে করি আরাধন, সেই ধনের প্রত্যাশা করি ; বামে রাধা কিংবা দক্ষে বলভদ্র, সঙ্গে লয়ে আসি বিতরহে ভদ্র, দাও ষোড়দলে যুগল শ্ৰীপাদ পদ্ম, সৰ্ব্বদা হৃদয়ে ধরি ॥ তুমি বৃন্দাবনে ব্ৰজনায়ক, একমাত্র জীবের চরম দায়ক, একপদে আছে অনেক গ্রাহক, অনেকে দিয়েছ হরি ; কণ্ঠের মনে ঐ চরণে প্রত্যাশ, সেই জন্য ভবে ঘুরে ফিরে আসা, এইবারে হরি পূর্ণ কর আশ, (আমি ) আর যাওয়া আসা করতে নারি ॥

  • o恩 فكلم