পাতা:বীথিকা-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৬৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বাথিক নাইক খেয়াল কখন সকাল পেরোয় পর, রেশমি ডানায় যায় চলে তার হালকা বেলা । চিনতে যদি চা ও তাহারে এসে তবে, দ্বারের ফঁাকে দাড়িয়ে থেকে আমার পিছু । হুধা ও যদি প্রশ্ন কোনে, তাকিয়ে র’বে বোকার মতন, - বলার কথা নেই যে কিছু । ধূলায় লোটে রাঙ। পাড়ের আঁচলপান, দুষ্ট চোখে তার নাল আকাশের স্তদূর ছুটি, কানে কানে কে কথ। কয় মায় না জানা, মৃগের পরে কে রাখে তার নয়ন দুটি । মান্মরিত শু্যামল বনের কাপন থেকে চম্কে নামে আলোর কণা তালগা চুলে ; তাকিয়ে দেখে নদীর রেখা চলছে বেঁকে, দোয়েল-ডাক বাউয়ের শাখ উঠছে ভুলে । সম্মুখে তার বাগান-কোণায় কামিন ফুল আনন্দিত অপব্যয়ে পাপড়ি ছড়ায় ; বেড়ার ধারে বেগুনি-গুচ্ছে ফুল্ল জারুল দখিন হাওয়ার সোহাগেতে শাখা নড়ায় । 8어