পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অষ্টম খণ্ড) - সুলভ বিশ্বভারতী.pdf/২৭২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


SG 8 রবীন্দ্ৰ-রচনাবলী চলায় বলায় সব কাজেতেই ভৈরবী দেয়। তান কেন যে তার পাই নে কিনারা । তাই তো আমি নাম দিয়েছি কোমল গান্ধার যায় না বোঝা যখন চক্ষু তোলে বুকের মধ্যে আমন করে কেন লাগায় চোখের জলের মিড় । ܠܹ S. W92 S SJ) ܝܢ ܘܗܶ বিচ্ছেদ আজ এই বাদলার দিন, এ মেঘদূতের দিন নয় । এ দিন অচলতায় বাধা । মেঘ চলছে না, চলছে না হওয়া, টিপিটিপি বৃষ্টি দিনের মুখের উপর । অমচহGন অবসর । সেদিন বিদ্যুৎ চমকাচ্ছে নীল পাহাড়ের গায়ে । দিগন্ত থেকে দিগন্তে ছুটেছে মেঘ, পুবে হাওয়া বয়েছে শ্যামজম্বুবানান্তকে দুলিয়ে দিয়ে । যক্ষনারী বলে উঠেছে, মা গো, পাহাড়সুদ্ধ নিল বুঝি উড়িয়ে । মেঘদূতে উড়ে চলে যাওয়ার বিরহ, দুঃখের ভাগ পড়ল না। তার পরেসেই বিরহে ব্যথার উপর মুক্তি হয়েছে জয়ী । সেদিনকার পৃথিবী জেগে উঠেছিল। মুখরিত বনহিল্লোলে, তার সঙ্গে দুলে দুলে উঠেছে মন্দাক্রান্তা ছন্দে বিরহীর বাণী । একদা যখন মিলনে ছিল না বাধা তখন ব্যবধান ছিল সমস্ত বিশ্বে, বিচিত্র পৃথিবীর বেষ্টনী পড়ে থাকত নিভূত বাসরকক্ষের বাইরে ।