পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অষ্টম খণ্ড) - সুলভ বিশ্বভারতী.pdf/৪৮৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 VeV রবীন্দ্ৰ-রচনাবলী নিরীক্ষণ করে থাকি- আমার কাছে এইরূপ মিথ্যা ও শূন্য ভাবুকতা অপেক্ষা লজ্জাকর ব্যাপার জগতে আর-কিছুই নেই। আমাদের সভা থেকে যদি এর কোনো প্ৰতিকার করতে পারি। তবে আমাদের সভা। ধন্য হবে । আমি রাত্রে গাড়োয়ান-পল্লীতে গিয়ে গোরুর অবস্থা সম্বন্ধে আলোচনা করেছি ; গোরুর প্রতি অনর্থক অত্যাচার যে স্বার্থ ও ধর্ম উভয়ের বিরোধী হিন্দু গাড়োয়ানদের তা বোঝানো নিতান্ত কঠিন বলে বোধ হয় না। এ সম্বন্ধে আমি গাড়োয়ানদের মধ্যে একটা পঞ্চায়েত করবার চেষ্টায় আছি। শ্ৰীমতী নির্মলা আকস্মিক অপঘাতের আশু চিকিৎসা এবং রোগিচাৰ্য সম্বন্ধে রামরতন ডাক্তার মহাশয়ের কাছ থেকে নিয়মিত উপদেশ লাভ করছেন- ভদ্রলোকদের মধ্যে সেই শিক্ষা ব্যাপ্ত করবার জন্যে তিনি দুই-একটি অন্তঃপুরে গিয়ে শিক্ষাদানে নিযুক্ত হয়েছেন । এইরূপে প্রত্যেক সভ্যোর স্বতন্ত্র ও বিশেষ চেষ্টায় আমাদের এই ক্ষুদ্র কুমার-সভা সাধারণের অজ্ঞাতসারে ক্রমশই বিচিত্র সফলতা লাভ করতে থাকবে এ বিষয়ে আমার কোনো সন্দেহ নেই । শ্ৰীশ । ওহে বিপিন, আমার কাজ তো আমি আরম্ভও করি নি । বিপিন । আমারও ঠিক সেই অবস্থা । শ্ৰীশ । কিন্তু, করতে হবে । বিপিন । আমাকেও করতে হবে । শ্ৰীশ । কিছুদিন অন্য সমস্ত আলোচনা ত্যাগ না করলে চলছে না । বিপিন । আমিও তাই ভাবছি । শ্ৰীশ । কিন্তু অবলাকাস্তবাবুকে ধন্য বলতে হবে- উনি যে কখন আপনার কাজটি করে যাচ্ছেন কিছু বোঝবার জো নেই । বিপিন । তাই তো বড়ো আশ্চর্য। অথচ মনে হয় যেন ওঁর অন্যমনস্ক হবার বিশেষ কারণ আছে । শ্ৰীশ । যাই ওঁর সঙ্গে একবার আলোচনা করে আসি গে । [শৈলর নিকট গমন পূর্ণ। রসিকবাবু, আপনাকে কী বলে ধন্যবাদ জানাব। রসিক । কিছু বলবেন না, আমি এমনি বুঝে নেব । কিন্তু, সকলে আমার মতো নয়। পূৰ্ণবাবু— আন্দাজে বুঝবে না, বলা-কওয়ার দরকার । পূর্ণ। আপনি আমার অন্তরের কথা বুঝে নিয়েছেন রসিকবাবু— আপনাকে পেয়ে আমি বেঁচে গেছি। আমার যা কথা তা মুখে উচ্চারণ করতেও সংকোচ বোধ হয় । আপনি আমাকে পরামর্শ দিন কী করতে হবে । রসিক । প্রথমে আপনি ওঁর কাছে গিয়ে যা হয় একটা কিছু কথা আরম্ভ করে দিন-ন । পূর্ণ। ঐ দেখুন-না, অবলাকাস্তবাবু আবার ঔর কাছে গিয়ে বসেছেনরসিক । তা হােক-না, তিনি তো ওঁকে চারিদিকে ঘিরে দাঁড়ান নি। অবলাকান্তকে তো বুহের মতো ভেদ করে যেতে হবে না । আপনিও এক পাশে গিয়ে দাড়ােন-না । পূর্ণ। আচ্ছা, আমি দেখি । শৈলবালা । (নির্মলার প্রতি) আমাকে এত করে বলবেন না- আপনি আমার চেয়ে ঢের বেশি কাজ করছেন - কিন্তু, বেচারা পূৰ্ণবাবুর জন্যে আমার বড়ো দুঃখ হয় । আপনি আসবেন বলেই উনি আজ বিশেষ উৎসাহ করে এসেছিলেন, অথচ সেটা ব্যক্ত করতে না পেরে উনি বোধ হয় অত্যন্ত বিমর্ষ হয়ে পড়েছেন । আপনি যদি ওঁকে নির্মলা । আপনাদের অন্যান্য সভ্যদের থেকে আমাকে একটু বিশেষভাবে পৃথক করে দেখছেন বলে আমি বড়ো সংকোচ বোধ করছি- আমাকে সভ্য বলে আপনাদের মধ্যে গণ্য করবেন, মহিলা বলে স্বতন্ত্র कदन् की । শৈলবালা । আপনি যে মহিলা হয়ে জন্মেছেন সে সুবিধাটুকু আমাদের সভা ছাড়তে পারেন না । আপনি আমাদের সঙ্গে এক হয়ে গেলে যত কাজ হবে, আমাদের থেকে স্বতন্ত্র হলে তার চেয়ে বেশি কাজ হবে। যে