পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অষ্টম খণ্ড) - সুলভ বিশ্বভারতী.pdf/৫০৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


চিরকুমার-সভা 8brዒ রসিক । এ কী, বড়োমা আসছেন যে ! অক্ষয় । আসবারই তো কথা । উনি তো কুমারটুলির ঠিকানায় যাবেন না। জগত্তারিণীর প্রবেশ শ্ৰীশ ও বিপিনের ভূমিষ্ঠ হইয়া প্ৰণাম দুইজনকে দুই মোহর দিয়া জগত্তারিণীর আশীৰ্বাদ । জনান্তিকে অক্ষয়ের সহিত জগত্তারিণীর আলাপ অক্ষয় । মা বলছেন, তোমাদের আজ ভালো করে খাওয়া হল না, সমস্তই পাতে পড়ে রইল।” শ্ৰীশ । আমরা দুবার চেয়ে নিয়ে খেয়েছি। বিপিন । যেটা পাতে পড়ে আছে। ওটা তৃতীয় কিস্তি । শ্ৰীশ । ওটা না পড়ে থাকলে আমাদেরই পড়ে থাকতে হত । জগত্তারিণী । (জনাস্তিকে) তা হলে তোমরা ওঁদের বসিয়ে কথাবার্তা কও বাছা, আমি আসি । [প্ৰস্থান दूनिक । नां, 6 डांत्रि अन्Iांश श्न । অক্ষয় । অন্যায়টা কী হল । রসিক । আমি ওঁদের বার বার করে বলে এসেছি যে, ওঁরা কেবল আজ। আহারটি করেই ছুটি পাবেন, কোনোরকম বিধবন্ধনের আশঙ্কা নেই। কিন্তু শ্ৰীশ । ওর মধ্যে কিন্তুটা কোথায় রসিকবাবু । আপনি অত চিন্তিত হচ্ছেন কেন । রসিক । বলেন কী শ্ৰীশবাবু, আপনাদের আমি কথা দিয়েছি। যখনবিপিন । তা বেশ তো, এমনিই কী মহাবিপদে ফেলেছেন । শ্ৰীশ । মা আমাদের যে আশীর্বাদ করে গেলেন। আমরা যেন তার যোগ্য হই । রসিক । না না, শ্ৰীশবাবু, সে কোনো কাজের কথা নয় । আপনারা যে দায়ে পড়ে। ভদ্রতার খাতিরেবিপিন । রসিকবাবু, আমাদের প্রতি অবিচার করবেন না- দায়ে পড়ে— রসিক । দায় নয় তো কী মশায় । সে কিছুতেই হবে না। আমি বরঞ্চ সেই ছেলেদুটােকে বনমালীর হাত ছাড়িয়ে কুমারটুলি থেকে এখনো ফিরিয়ে আনব, তবু শ্ৰীশ । আপনার কাছে কী অপরাধ করেছি। রসিকবাবু। রসিক । না না, এ তো অপরাধের কথা হচ্ছে না । আপনারা ভদ্রলোক, কীেমাৰ্যব্ৰত অবলম্বন করেছেনআমার অনুরোধে পড়ে পরের উপকার করতে এসে শেষকালে— বিপিন । শেষকালে নিজের উপকার করে ফেলব। এটুকু আপনি সহ্য করতে পারবেন না- এমনি হিতৈষী বন্ধু ! শ্ৰীশ । আমরা যেটাকে সৌভাগ্য বলে স্বীকার করছি- আপনি তার থেকে আমাদের বঞ্চিত করতে চেষ্টা করছেন কেন । রসিক । শেষকালে আমাকে দোষ দেবেন না । বিপিন । নিশ্চয় দেব, যদি না। আপনি স্থির হয়ে শুভকর্মে সহায়তা করেন । রসিক । আমি এখনো সাবধান করছি গতং তদগাষ্ঠীর্যং তটমপি চিতং জালিকশতৈঃ সখে হংসোত্তিষ্ঠ ত্বরিতম মুতো গচ্ছ সরাসাঃ । সে গাভীৰ্যগেল কোথা, নদীতটি হেরো হােথা জালিকেরা জালে ফেলে ঘিরে— । সখে হংস, ওঠে ওঠো, সময় থাকিতে ছোটো হেথা হতে মানসের তীরে ।