পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অষ্টম খণ্ড) - সুলভ বিশ্বভারতী.pdf/৬৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নদীপথে যায়।’ ঘট-কাখে বেণুবীথিকার বঁাকে বাকে ধীর পায়ে চলিब्ञ दि5 aर्वनी । कांख्रिश्र्वनी প্ৰচ্ছন্ন দক্ষিণ্যভারে চিত্ত তার নত স্তম্ভিত মেঘের মতো, তৃষ্ণাহরা আষাঢ়ের আত্মদান-প্ৰত্যাশায় ভরা । সে যেন গো তামালের ছায়াখানি, অবগুণ্ঠনের তলে পথ-চাওয়া আতিথ্যের বাণী । যো-পথিক একদিন আসিবে দুয়ারে সেই অজানার লাগি গৃহকোণে আনতনয়ন বুনিছে শয়ন । সে যেন গো কাকচক্ষু স্বচ্ছ দিঘিজল অচাঞ্চ3ল কানায়-কানায়-ভরা, শীতল অতল-মাঝে প্ৰসন্ন কিরণ দেয় ধরা । কালো চক্ষুপল্লবের কাছে থমকিয়া আছে। স্তব্ধ ছায়া পাতি হাসির খেলার সাথি সুগভীর স্নিগ্ধ অশ্রুবারি ; যেন তাহা দেবতরি করুণা-অঞ্জলি নাম কি কাজলী । হেঁয়ালি যারে সে বেসেছে ভালো তারে সে বঁকাদায় । নূতন ধাধায় ক্ষণে ক্ষণে চমকিয়া দেয় তারে, কেবলই আলো-আঁধারে সংশয় বাধায় ; ছল-করা অভিমানে বৃথা সে সাধায় । ܠ ?)