পাতা:রামতনু লাহিড়ী ও তৎকালীন বঙ্গসমাজ.djvu/৪৬৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।
৩৮৭
অতিরিক্ত পত্র।

করিলেন। রামতৃত্ব বাবুও তাহার অনুরূপ সহকারী পাইলেন। ভট্টাচাৰ্য্য মহাশয়ের তাহার উপর প্রধাঢ় শ্রদ্ধা , ও ভক্তি ছিল। ইস্কুলের উন্নতি সাধন জন্ত র্তাহারা দুই জনে কত চিন্তা করিয়াছিলেন ও প্রয়াস পাই ছিলেন তাহা প্রকাশ নাই। ঐ সময়ে ইস্কুলে গুপ্ৰায় ২ ৫০ ছাত্র ছিল। প্রত্যেক ছাত্রের নাম, বাড়ী, অভিভাবক কে, তাঁহার অবস্থা কেমন, এ সকল সমাচার অল্প দিনের মধ্যে রামতন্তু বাৰু অনুসন্ধান করিয়া জানিয়া লইয়াছিলেন।

 ৩। আমরা যে কালে ইস্কুলে পড়ি, তখন ফুটবল, ব্যাটবল, জিমন্তাষ্টিক প্রভৃতি খেলা ছিল না। কিন্তু অঙ্গ চালনার উপযোগী জন্ত প্রকার খেলা অনেক ছিল। মুণকোট আর কপাটা বেশী চলিত। ইস্কুল বসিবার পূৰ্ব্বে কিম্ব টিকিনের সময়ে ইস্কুল ভূমিতে খেলা হইতেছে দেখিলে 'রামতন্থ বাবু প্রায় সেখানে উপস্থিত থাকিতেন; এবং মধ্যে মধ্যে র্তাহাকে হার জিতের মীমাংসা করিয়া দিতে হইত।

 ৪। উত্তরপাড়ার ইস্কুল বাটীর উপরতলে রামতনু বাবু থাকিড়েম’ নীচে ইস্কুল হইত। পাঠের . সময় কোন ঘরের দরজা বন্ধ থাকিত না কিন্তু সকল কেলাশের পাঠ সুচারু রূপে চলিত। কোন কেলাশ হইতে একটু গোলমালের শব্দ তাহার কাণে গেলে অমনি আপন স্থান হইতে উঠিয়া, সেখানে যাইয়া দাড়াইবা মাত্র সব মুশৃঙ্খল হইয়। बाईऊ। श्रीक ঘণ্টার মধ্যে র্তাহার এক মুহূৰ্ত্তও বিশ্রাম থাকিত না। সমস্তক্ষণ সমভাবে মনোযোগী থাকিতেন।' ইস্কুলের বালকগণকে যেন তিনি মুঠোর ভিতর রাখতেন। ইস্কুলগৃহের ভিতর প্রবেশ করিলেই বোধ হইতাষে এখানে একটা মহৎ কার্য সম্পাদিত হইতেছে।

 ৫। আহারের পর মানসিক চিন্তা' অস্বাস্থ্যকর, এই জন্ত ইস্কুল বলিলে ছাত্রদের প্রথমে হস্তলিপি লিখিবার নিয়ম করিয়াছিলেন; এই সঙ্গে বানান শুদ্ধির কার্যও হইত। তিনি নিজে কি ,স্বন্দর লিখিতেন, লেখার প্রত্যেক টান যেন তাহার অন্তর হইতে বহির হইত। র্তাহার এত বয়স হইয়াছিল কিন্তু লিখিবার সময় কখনও হাত কঁাপিত না। ৬। আধঘণ্টা লেখার পর পড়া আরম্ভ হইত। পড়ার প্রথম অঙ্গ আবৃত্তি। .एँडफ्न न} डेकार्बन শুদ্ধি ও যতি চ্ছেদ ঠিক হইত ততক্ষণ আবৃত্তি করিতে হইত। তিনি নিজেপধাঁর বার আবৃত্তি করিয়া শিথাইতে ক্রটী করিতেন না। পাঠের অনেক অংশ তাহৱে আবৃত্তি-গুণে আমাদের রোধ