পাতা:লালন-গীতিকা.djvu/১২৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


লালন-গীতিক সুধা অমৃত বয় তেমনি গরলে আছে ঢাকিয়ে ॥ দুগ্ধে জলে যদি মেশায় হংস হ’লে সেই বেছে খায় লালন বলে, আমি সদায় আমোদ করি জল হদ নিয়ে 、〉ミぶ。 নামে রসিক নাম ধরিয়ে মন বেড়াও জগৎ মাতিয়ে । ভাব জান না ভাবের ডোঙা ভাঙ্গিলে মাটি গুতিয়ে ৷ পেয়েছ জলসেচ এক চাকুরি জরিয়ে ধড়ি মেরে গুড়ি সেঁচুলি সুরু আখেরি রসিক যারা চতুর তারা আছে হাওয়ায় ফাদ পাতিয়ে ॥ নাদায় গুড় নাইরে মন, খাপরি ভাঙ্গ, ঘুরে বেড়িয়ে হ’ল না, তুই গাড়ে পড়লি, চুবনি খেলি তবু উঠিস্ কুতুকুতিয়ে ॥ পিচাশে স্বভাব রে তোর যায় না, তোর কথার দৈন্ত কাজে শূন্ত মদন-রসে মগনা লালন বলে, স্বভাব-গুণে হলি রে তুই বেজাতীয়ে ॥