পাতা:লালন-গীতিকা.djvu/২৪৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


২১০ লালন-গীতিকা ব্ৰহ্মাও ভাবুক যার ভাবিয়ে সে ভাবুক আজ, কাহার ভাব লয়ে একি অসম ভাব ভাবনা সম ভাবে কোন জনা মরি মরি ভাবের বলিহারি যাই ॥ অমুভাবে ভেবে কতই করি সার, শু্যামর্চাদের উত্তম কি চাদ আছে আর, করে চাদে চাদ হরণ সেহি বা কেমন ভক্তিবিহীন লালন বসে ভাবে তাই ॥ "ඵය ද কার ভাবে এ ভাব হারে জীবন কানাই । করে বঁাশী নাই, মাথে চুড়া নাই। ক্ষীর সর ননী খেতে বঁাশীটি সদাই বাজাতে কি অ-সুখ পেয়ে তাতে ফকির হ’লি ভাই ॥ অগোর চন্দন আদি মাখিতে নিরবধি সেই অঙ্গ ধূলায় অদৃভূতি এখন দেখতে পাই ॥ বৃন্দাবন যথার্থ বন তো বিনে হ’লরে এখন, মানুষ লীলে করবে কোনজন লালন বলে তাই ॥