প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (নবম সম্ভার).djvu/২৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শেষ প্রশ্ন প্রফেসারের দল যেন আকাশ হইতে পড়িল । অক্ষয় কহিলেন, পাথরের কারবারটা হঠাৎ আপনার হযে গেল কি-রকম শিবনাথবাবু ? শিবনাথ গম্ভীর হইয়া শুধু জবাব দিল, আমার বই কি ! অক্ষয় বলিলেন, কখখনে না। আমরা সবাই জানি যোগীনবাবুর। শিবনাথ জবাব দিল, জানেন ত আদালতে গিযে সাক্ষী দিয়ে এলেন না কেন ? কোন ডকুমেণ্ট ছিল ? শুনেছিলেন ? অবিনাশ চকিত হইয়া প্রশ্ন করিলেন, না শুনিনি কিছুই। কিন্তু এ কি আদালত পৰ্য্যন্ত গড়িয়েছিল নাকি ? শিবনাথ কহিল, হঁ। যোগীনের সম্বন্ধী নালিশ করেছিলেন । ডিক্ৰী আমিই পেয়েচি । অবিনাশ নিশ্বাস ফেলিয়া বলিলেন, বেশ হয়েছে । তা হলে শেষ পর্য্যন্ত বিধবাদের দিতে কিছুই হ’ল ন । শিবনাথ বলিল, না। থালিম, চপ-টা খাসা রেপেচে হে ! আর দু-একটা আন ত ? আপ্তবাবু অভিভূতের ন্যায বলিশা ছিলেন, চমকিয়া মুখ তুলিয়া বলিলেন, কই আপনার ত কিছুই খাচ্চেন না ? আহারের রুচি ও ক্ষুধা সকলেরই অন্তর্হিত হইয়া গিয়াছিল, মনোরম নিঃশব্দে উঠিয়া যাইতেছিল, শিবনাথ ডাকিয়া কহিল, কি রকম ! আমাদের খাওয়া শেষ না হতেই যে বড় চলে যাচ্চেন ? মনোরমা এ-কথার উত্তর দিল না, ফিরিয়াও চাহিল না ; ঘৃণায় তাহার সর্বদেহে কাটা দিয়া উঠিল । (ى، উপরোক্ত ঘটনার পরে সপ্তাহকাল গত হইয়াছে। দিন-দুই হইতে অসময়ে মেঘ করিয়া বৃষ্টি হইতে আরম্ভ করিয়াছিল, আজও সকাল হইতে মাঝে মাঝে জল পড়িয়া Ꮌ☾