প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:শেষ প্রশ্ন.djvu/১৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Σ. Νο4) শেষ প্রশ্ন আজ সেই সেলাইয়ের কল-বিক্রী-আলা পার্শী বেটার সঙ্গে দেখা । সেই সেদিন যে কমলের হয়ে টাকা ধার চাইতে গিয়েছিল। গাড়ী থামিয়ে ব্যাপারটা শোনা গেল। কমলকে দেখাইয়া কহিল, উনি ধারে একটা কল কিনে ফতুয়া টতুয়া শেলাই করে খরচ চালাচ্ছিলেন,— শিবনাথ তো দিব্যি গা ঢাকা দিয়েছেন–কিন্তু কড়ার মতু দাম দেওয়া চাই তো ! তাই সে কলটা কেড়ে নিয়ে গেছে,—আশুবাবু আজ পুরো দাম দিয়ে সেটা কেনে, নিলেন। কমল, কাল সকালেই লোক পাঠিয়ে কলটা আদায় করে নিয়ো । খাওয়া-পরা চলুছিলনা, আমাদের তো সে কথা জানালেই হোতো । তাহার বলার বর্বর নিষ্ঠুরতায় সকলেই মৰ্ম্মাহত হইল। কমলের লাবণ্যহীন শীর্ণ মুখের একটা হেতু দেখিতে পাইয়া লজ্জায় অবিনাশের পৰ্য্যন্ত মুখ রাঙা হইয়া উঠিল। কমল মৃদ্ধকণ্ঠে কহিল, আমার কৃতজ্ঞতা জানিয়ে তাকে সেটা ফিরিয়ে দিতে বলবেন । আর আমার প্রয়োজন নেই। কেন ? কেন ? হরেন্দ্ৰ কহিল, অক্ষয় বাবু আপনি যান এ বাড়ী থেকে। আপনাকে অামি আহবান করিনি—ইচ্ছে করিনি যে আপনি আসেন, তবু এসেছেন। মানুষের ব্রুট্যালিটির কি কোথাও কোন সীমা থাকুবেনা। • কমল হঠাৎ মুখ তুলিয়া দেখিল অজিতের দুই চক্ষু যেন জলভারে ছল ছল করিতেছে। কুহিল, অজিতবাবু, আপনার গাড়ী সঙ্গে আছে, -দয়া করে আমীকে পৌছে দেবেন? . অজিত কথা কহিলনা, শুধু মাথা নাড়িয়া সায় দিল। কমল নীলিমাকে নমস্কার করিয়া বলিল, আর বোধহয় শীঘ্ৰ দেখা হবেন, আমি এখান থেকে যাচ্চি ।