পাতা:শ্রীমদ্‌ভগবদ্‌গীতা-বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/১৫৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দ্বিতীয় অধ্যায় । る露○ যাহাকে ভাষায় কাজ এবং ইংরেজিতে action বলে, তাহা সুস্বন্ধেই কেবল একথা বলা যাইতে পারে । কেহ কথন কঞ্জি না করিং থাকিতে পারে না, অন্ত কোন কাজ না করুক স্বভাব বা প্রকৃতির ( Nature ) বশীভূত হইয়া কতকগুলি কাজ অবশু করিতে হইবে । যথা, অশন, বসন, শয়ন, শ্বাস, প্রশ্বাস, ইত্যাদি । অতএব স্পষ্টই কৰ্ম্মশব্দে বাচ্য, যাহাকে সচরাচর কৰ্ম্ম বলা যায়, তাহাই ; যজ্ঞাদি নহে । পুনশ্চ ঐ অধ্যায়ের ৮ম শ্লোকে কথিভ হইতেছে । নিরতং কুরু কৰ্ম্ম ত্বং কৰ্ম্ম জ্যায়েtহকৰ্ম্মণঃ । শরীরযাত্রাপি চ তে ন প্রসিধ্যেদকৰ্ম্মণঃ ॥ “তুমি নিয়ত কৰ্ম্ম কর ; কৰ্ম্ম অকৰ্ম্ম হইতে শ্রেষ্ঠ ; অকৰ্ম্মে তোমার শরীর যাত্রাও নিৰ্ব্বাহ হইতে পরিবে না ” এখানেও, নিশ্চিত কৰ্ম্ম শব্দ, সৰ্ব্ববিধ কৰ্ম্ম বা "কাজ” – বজ্ঞাদি নহে । যজ্ঞাদি ব্যতীত সকলেরষ্ট শরীরযাত্রা নিৰ্ব্বাহ হইতে পারে ও হইয়া থাকে, কেবল কাজ বা action, যtহাকে সচরাচর কৰ্ম্ম বলা যায়, তাহ ভিন্ন শরীর যাত্রা নিৰ্ব্বাহ হয় না । এবংবিধ প্রমাণ গীত হইতে আরও উদ্ধৃত করা যাইতে পারে । * প্রমাণ নির্দোব হইলে, এক প্রমাণই যথেষ্ট । অতএৰ অfর নিম্প্রয়োজনীয় । • পক্ষান্তরে অষ্টমাধ্যায়ে, “ভূতভাবোস্তবকরে। বিসর্গ: কৰ্ম্মসংজ্ঞিতঃ” ইতি বfক্যও আছে । তাহার প্রচলিত অর্থ যজ্ঞ পক্ষে ঘটে । কিন্তু সেই প্রচলিত অর্থও যে ভ্ৰমাত্মক বোধ করি পাঠক তাহ পশ্চাৎ বুঝিতে পারিবন । আমি বুঝাইব এমন কথা বলি না—পাঠক সহজেই বুঝিবেন । এবং ইহাও স্বীকার