পাতা:শ্রীমদ্‌ভগবদ্‌গীতা-বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/৫০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দ্বিতীয় অধ্যায়। శ్రీశి তখন ভগবঢুক্তির ব্যাখ্যারও সম্প্রসারণ আবস্ত্যক হর । কেন না, ধৰ্ম্ম নিত্য , এবং সমাজের সঙ্গে তাহার সম্বন্ধও নিত্য । ঈশ্বরোক্ত ধৰ্ম্ম যে কেবল একটী বিশেষ সমাজ বা বিশেষ সামাজিক অবস্থার পক্ষেই ধৰ্ম্ম, সমাজের অবস্থাস্তরে তাহা আর খাটিবে না, এজন্ত সমাজকে পূর্বাবস্থাতে রাখিতে হইবে, ইহা কখন ঈশ্বরাভি প্রায়সঙ্গত হইতে পারে না । কালক্রমে সামাজিক পরিবর্তনানুসারে ঈশ্বরোক্তির সামাজিক জ্ঞানোপযোগিনী ব্যাখ্যা প্রয়োজনীয় । কৃষ্ণোক্ত স্বধৰ্ম্মের অর্থের ভিতর বণাশ্ৰমধৰ্ম্মও আছে ; আমি যাহা বুঝাইলাম তাছাও আছে, কেননা উহ। বর্ণাশ্রমধৰ্ম্মের সম্প্রসারণ মাত্র । তবে প্রাচীনকালে বর্ণাশ্রম বুঝিলেই ঈশ্বরোক্তির কালোচিত ব্যাখ্যা করা হয় ; আমি যেরূপ বুঝাইলাম, এখন সেইরূপ বুঝিলেই কালোচিত ব্যাখ্যা করা হয় । স্বধৰ্ম্ম কি, তাহা যদি, যাহ। হৌক এক রকম, আমরা বুঝিয়। থাকি, তবে এক্ষণে স্বধৰ্ম্ম পালন কেন করিব তাহা বুঝিতে হইষে । শ্ৰীকৃষ্ণ দুই প্রকার ষিচার অবলম্বনপূৰ্ব্বক এ তত্ত্ব অৰ্জ্জুনকে বুঝাইতেছেন । একটা জ্ঞানমার্গ, আর একটী কৰ্ম্মমাৰ্গ । •এই অধ্যায়ে দ্বাদশ শ্লোক হইতে আটত্রিশ শ্লোক পর্য্যন্তু জ্ঞানমার্গ কীৰ্ত্তন, তৎপরে কৰ্ম্ম-মার্গ । % জ্ঞানমার্গের স্থূল তত্ত্ব আত্মা অষিনশ্বর। পর শ্লোকে সেই কথা উঠিতেছে । ন ত্ত্বেবাহং জাতু নাসং ন ত্বং নেমে জনাধিপাঃ । ন চৈব ন ভবিষ্কামঃ সৰ্ব্বে স্বয়মতঃপরম ॥ ১২ ॥