পাতা:সিরাজদ্দৌলা - অক্ষয়কুমার মৈত্রেয়.pdf/২৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।
সিরাজদ্দৌলার জন্ম। ১৩

 আলিবর্দ্দীর তিনটিমাত্র কন্যা, একটিও পুত্ৰ সন্তান নাই[১]। তিনিও নিজ ভ্ৰাতা হাজি আহমদের তিন পুত্র নওয়াজেস্ মোহাম্মদ, সাইয়েদ আহমদ এবং জয়েনউদ্দীনের সঙ্গে আপনি তিন কন্যার বিবাহ দিয়াছিলেন; এবং সিংহাসন লাভ করিলে, যথাকালে তিন জামাতাকে তিন প্রদেশের শাসনভার প্রদান করিয়াছিলেন। তদনুসারে জয়েনউদ্দীন পাটনায়, সাইয়েদ আহমদ পূৰ্ণিয়ায় এবং নোয়াজেস মোহাম্মদ ঢাকায় থাকিয়া নবাবী করিতেন।

 আলিবন্দী যে সময়ে পাটনার শাসনভার প্রাপ্ত হন, সেই শুভ সময়ে; তাহার কন্যাস আমিনাবেগমের গর্ভে মিরজা মোহাম্মদ নামে তাহার এক দৌহিত্র ভূমিষ্ঠ হইয়াছিল। আলিবর্দ্দী সেই শুভদিনের আনন্দ কোলাহলের মধ্যে নবজাত শিশুকে পোষ্যপুত্ররূপে গ্রহণ করিয়াছিলেন। আজ যে বালক, কা’ল সে যুবা হয়;—আজ সূতিকা-গৃহের ধাত্রীক্রোড় যাহার

  1. ইতিহাস-বিমুখ বাঙ্গালাদেশে এই অল্প দিদৈর মধ্যেই নবাব আলিবর্দ্দীর কয়টি কন্যা-তাহা লইয়া বিবাদের ভিত্তিমূল স্থাপিত হইয়াছে। মুর্শিদাবাদের ইতিহাস লিখিবার জন্য বিবরণ সংগ্ৰহ করিবার সময়ে বহরমপুর কলেজের শিক্ষক শ্ৰীযুক্ত বাবু কালীপ্রসন্ন বন্দ্যোপাধ্যায় মহাশয় যাহা জানিয়াছেন, তাহাতে তাঁহার ধারণা এই যে, ঘসেটি ও আমিনাবেগম নামে আলিবর্দ্দীর দুইটী মাত্র কন্যা ছিল। ইতিহাস-লেখক অৰ্ম্মি বলেন “না, নবাব আলীবর্দ্দীর মোটেই এক কন্যা”। মুত্রক্ষরীণ লেখক সাইয়েদ গোলাম হোসেন আলীবর্দ্দীর আত্মীয় এবং সমসাময়িক; তিনি তিন কন্যার কথাই লিখিয়া গিয়াছেন এবং আনুসারে ইতিহাসলেখক মিল সাহেবও তিন কন্যার উল্লেখ করিয়া টীকায় লিখিয়াছেন-Orme, ii. 34, says that Aliverdi had only one daughter. The author othe Seer Mutakherin, who was his near relation, says he had three, i, 304 - Mill's History of British India, Vol. III. কিলীপ্রসন্ন বাবু সম্প্রতি যে বাংলার ইতিহাস প্রকাশিত করিয়াছেন, তাহাতে টীকাস্থলে আলিবর্দ্দীর তিন কন্যা স্বীকার করিয়াছেন। ১৪৩ পৃষ্ঠার ৩য় টীকায় তাহা এক্ষণে স্পষ্টাক্ষরে স্বীকৃত হইয়াছে।