পাতা:সোনার তরী-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/১১

এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।


বিম্ববতী।

(রূপকথা।)

সযত্নে সাজিল রাণী, বাঁধিল কবরী,
নবঘনস্নিগ্ধবর্ণ নব নীলাম্বরী
পরিল অনেক সাধে। তার পরে ধীরে
গুপ্ত আবরণ খুলি’ আনিল বাহিরে
মায়াময় কনক দর্পণ। মন্ত্র পড়ি’
শুধাইল তারে—কহ মােরে সত্য করি’
সর্ব্বশ্রেষ্ঠ রূপসী কে ধরায় বিরাজে।
ফুটিয়া উঠিল ধীরে মুকুরের মাঝে
মধুমাখা হাসি-আঁকা একখানি মুখ,
দেখিয়া বিদারি’ গেল মহিষীর বুক-
রাজকন্যা বিম্ববতী সতীনের মেয়ে
ধরাতলে রূপসী সে সবাকার চেয়ে!

তার পর দিন রাণী প্রবালের হার
পরিল গলায়। খুলি’ দিল কেশভার
আজানুচুম্বিত। গােলাপী অঞ্চলখানি,
লজ্জার আভাসসম, বক্ষে দিল টানি’।
সুবৰ্ণ মুকুর রাখি কোলের উপরে
শুধাইল মন্ত্র পড়ি’—কহ সত্য করে’