সভ্যতার পাণ্ডা/দশম দৃশ্য


দশম দৃশ্য।

পশুশালা।

কিপার কিপারেস্ প্রভৃতি গীত।

সকলে। তামাসা চল্‌তা হায় বহুৎ উমদা।
হোগা ফায়দা, দেখো হিঁয়া ক্যাসা জুদা কায়দা॥

পুগণ। জানি মস্তি হুয়া,

স্ত্রীগণ। কেত্‌না কুস্তী কিয়া,

সকলে। ট্রাপেজ প্যারালেল্‌ বারমে ক্যা কহে তুমে,
উল্‌টি পাল্‌টি লট্ লট্ তব্ ছুটী,

স্ত্রীগণ। উনে কিরা খায়া,

পুগণ। জানি না হায়রাণ ভয়া,

স্ত্রীগণ। যেসা সেঁইয়া পেয়ার,

পুগণ। পিয়ারি যেসি জানি মেরা।

সকলে। খেলে গা জানোয়ার মাদি মরদা।

কিপার। আমাদের প্রথম তামাসা-সংস্কারক বৃষ ও গাভী।

(বৃষ ও গাভী লইয়া বেহারার প্রবেশ।)

গাভী। মাইডিয়ার বুল! তুমি আর ঘাস খেওনা।

বৃষ। মাইডিয়ার কাউ! তুমি আর দুদ্ দিওনা।

গাভী। না দুদ্‌ দেব না, তুমি বল ঘাস খাবে না?

বৃষ। না।

গাভী। প্রতিজ্ঞে?

বৃষ। প্রতিজ্ঞে।

গাভী। এসো সেক্‌হ্যাণ্ড করি। মাইডিয়ার বুল! তুমি উলঙ্গ ষাঁড় দেখ্‌লে গুঁতিও।

বৃষ। মাইডিয়ার কাউ! তুমিও উলঙ্গ গাভী দেখ্‌লে গুঁতিও।

গাভী। প্রতিজ্ঞে?

বৃষ। প্রতিজ্ঞে।

গাভী। এস সেক্‌হ্যাণ্ড করি। মাই ডিয়ার বুল্! জবাই হইও, অম্‌নি মরনা।

বৃষ। মাইডিয়ার কাউ! তুমি ও জবাই হইও অম্‌নি মরো না।

গাভী। না।

বৃষ। না।

গাভী। প্রতিজ্ঞে?

বৃষ। প্রতিজ্ঞে।

গাভী। এস সেক্‌হ্যাণ্ড করি। মাইডিয়ার বুল্‌! এখন ত’মলে আর কি করবে?

বৃষ। মাইডিয়ার কাউ! তুমিও তো মলে আর কি করবে?

গাভী। তাই তো!

বৃষ। তাই তো!

গাভী। প্রতিজ্ঞে?

বৃষ। প্রতিজ্ঞে।

(উভয়ের গীত।)

রিফর্ম্মার আমরা দুজনে।
দুজনে প্রথমে দেখা ময়দানে॥
তর্ক প্রথম অব্ সিনিটী নে,
তার পর কোর্ট-সিপ করে বে,
তার পর শুনলে প্রতিজ্ঞে,
শুন্‌লেন তো গুণ, এখন মানুন না মানুন,
যত ষাঁড় অাছে আর গরু অাছে,
আমাদের খুবজানে, খুবমানে॥

কিপার। আমাদের দ্বিতীয় তামাসা—অধ্যাপক গর্দ্দভ।

(গর্দ্দভ লইয়া বেহারার প্রবেশ।)

গর্দ্দভ! আমার এমন সুশ্রী গড়ন ছিলনা। মাথাটা গোল, মুখ খানা চেপ্‌টা, দুপায়ে হাঁট্‌তুম, গায়ে মাছি বস্‌লে একটী লেজ নেই যে তাড়াই।

কিপার। আচ্ছা তবে এমন সুঠাম চেহারা হলো কিসে?

গর্দ্দভ। ছেলে বয়সে এক বোঝা বই মাথার চাপালে, মাথাটা চেপ্‌টে গেল। চড়িয়ে মুখ লম্বা করলে। তার পর পিটের ওপর দু ছালা বই দিতেই হুম্‌ড়ি খেয়ে পড়লুম, চার পায়ে হাঁট্‌তে শিখ্‌লুম। কান্‌ দুটো টেনে টেনে লম্বা হলো, আর লেজ্‌ বেরুলো আপ্‌নি।

কিপার। ডাক্‌তে শিখ্‌লে কি করে?

গর্দ্দভ। ও লেজও বেরুনো ডাক ও খোল!

কিপার। এখন কি করবে?

গর্দ্দভ। ট্রেনিংস্কুল।

কিপার। তার পর?

গর্দ্দভ। যারা ভর্ত্তি হবে তারা ঠিক্ আমার মতন হয়ে বেরুবে।

কিপার। তারা কি করবে?

গর্দ্দভ। ঘাস খাবে, ধোপার বোঝা বইবে, আর বেয়াড়া ডাক্‌ ডাক্‌বে।

গর্দভ।
গীত।

কে আস্‌বে আমার স্কুলে।
যাবে তিন দিনে তার লেজ ঝুলে॥
আমার এমনি কসে টান্,
এক্‌টানে তার লম্বা হবে কান্‌
চল্‌বে চারটি-খুরে,
গলাবাজী করবে জোরে,
ফুলে ফুলে ঘাড় তুলে॥

কিপার। আমাদের তৃতীয় তামাসা— স্মার্ত্ত বানর বানরি।

(বানর বানরী লইয়া বেহারার প্রবেশ।)

বানরি। প্রত্যেক বানর ও বানরি কি মানুষের অনুকরণ করিতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য। কারণ বিজ্ঞান মতে তারা স্বজাত।

বানরি। চুরি কর্‌তে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। বড় বানরের লেজ ধর্‌তে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। ঝগ্‌ড়া করতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। দাঁত খিঁচুতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। আঁচড়তে কামড়াতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। বানরি বানরকে লাথি মারিতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। ডাইভোর্স অর্থাৎ ফারখৎ করিতে বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। এখনি বাধ্য?

বানর। বাধ্য।

বানরি। তবে যাও।

বানর। আচ্ছ চল্লুম, দেখি এমন বাঁদর কোথা পাও।

বানরি। অারে নাও নাও, তোমার মতন ধাড়ী বাঁদর গণ্ডা গণ্ডা। যে দিকে চাও, দেখে নাও, আমি দেখ্‌বো কোথা বাঁদরি পাও।

বানর। অভাব কি? রাস্তায় ঘাটে মাঠে—

বানরি। তবে ডাইভোর্স?

বানর। ডাইভোর্স।

উভয়ে গীত।

দুজনে ছিলাম রেতে দুডালে।
হোলে শুভ দৃষ্টি সকালে॥
দুপুর বেলা এক ডালে বসে,
সজ্‌নে পাতা ঠুসেছি ক’সে,
কিচি কিচি দুপুর থেকে
ফারখৎ হলো বিকেলে॥

কিপার। আমাদের চতুর্থ তামাসা—ভলেণ্টীয়ার ভেড়া।

(ভেড়া লইয়া বেহারার প্রবেশ।)

কিপার। তুমি লড়্‌বে?

ভ্যাড়া। লড়্‌বো।

কিপার। কার সঙ্গে?

ভ্যাড়া। কারুর সঙ্গে না, আপনা আপনি।

কিপার। ঘোড়া চড়্‌বে?

ভ্যাড়া। চ’ড়বো।

কিপার। কি ঘোড়া?

ভ্যাড়া।কাটের ঘোড়া।

কিপার। বন্দুক ছুড়বে?

ভ্যাড়া। ছুড়বো।

কিপার। কি করে?

ভ্যাড়া। চোক্ বুজে।

কিপার। ঘোড়া থেকে পড়্‌বে?

ভ্যাড়া। পড়বো।

কিপার। কখন?

ভ্যাড়া। বন্দুক ছুড়বো যখন।

কিপার। যদি কেউ লড়াই কর্‌তে এসে?

ভ্যাড়া। তা আমার কি? দৌড় মারবো ক’সে।

কিপার। তোমার মত ভ্যাড়া ভলেন্‌টীয়ার কটী আছে?

ভ্যাড়া। এক পাল ভ্যাড়া, এম্‌নি সিং মোচড়া, এম্‌নি রোকে এম্‌নি তাল ঠোকে, যদি কারু সাড়া পায়, এমনি চার পা তুলে পালায়।

কিপার। দাঁড়াও দাঁড়াও, একটি গান গাও।

ভ্যাড়া।
গীত।

শেম শেম, কাউয়ার্ড নেম,
রাখ্‌বো না আর ভ্যাড়ার পাল।
তোষ দান বাঁধা বন্দুক কাঁধ,
ভারি মিলিটারি চাল॥
রাগে ফাটি, বাটী বাটী অামানি খাই সাঁজ সকাল॥
লড়তে এলে বন্দুক ফেলে চার পা তুলে
পেরুই খাল॥
হর্‌দম্ হর্‌দম্ রেগে লাল, পুরু ছাল॥

কিপার। আমাদের পঞ্চম তামাসা— হাড়গিলে কমিসনার।

(হাড়গিলে লইয়া বেহারার প্রবেশ।)

কিপার। যখন এসেছ পরিচয় দাও, তুমি হেথায় কেন?

হাড়গিলে। আমায় চেন? অামায় জান? আমি হাড়গিলে।

কিপার। নামটি কোথা পেলে?

হাড়গিলে। সায়েবদের এঁটো হাড় গিলে গিলে।

কিপার। কোথায় থাক?

হাড়গিলে। টেক্সর বিলে।

কিপার। কেন এয়েছো?

হাড়গিলে। কমিসনার হব বলে।

কিপার। তা হে তায় এয়েছ কি করতে?

হাড়গিলে। ভোট নিতে।

কিপার। কমিসনার হোয়ে কি করবে?

হাড়গিলে। দেখছো দুটো ঠোঁট্?

কিপার। দেখছি।

হাড়গিলে। শুনেছ খাই এটোঁ হাঁড়?

কিপার। শুনেছি।

হাড়গিলে। এখন রেয়োতের হাড় মাস খাবে।

কিপার। ত। পারো পারো।

হাড়গিলে
গীত।

আজ ভোট দিয়ে কাল ওপারে যেও উঠে।
বাজাবো ঠোঁটে ঠোটে, নেব লুটে পুটে।
বলি ভালোয় ভালোয়,
পালাও আলোয় আলোয়,

নইলে মুস্কিল, রোজ বস্‌বে শীল,
চাটী ভিটে মাটি, থাক্‌বেনা ঘটী বাটী,
পালাতে হবে ছুটে, এক ছুটে॥}}

কিপার। আমাদের ষষ্ঠ তামাসা—পুজরি ভালুক ও যজমানি ভালুকী।

(ভালুক ভলুকী লইয়া বেহারার প্রবেশ)

ভালুকী। ইস্, তুমি ভারি টল্‌চ্ছো!

ভালুক। তুমি যে থাবা থাবা মোউও খাইয়েছ, তাতে নেশা হয়েছে!

ভালুকী। নৈবিদ্দি কর’বো কোন ঠাকুরের?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি, নৈবিদ্দি সাজাও!

ভালুকী। পুজা হবে কার?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি, ফুল দাও!

ভালুকী। মন্তর পড়ছো কি?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি তুমি শাঁক বাজাও।

ভালুকী। কেন পূজো করছো?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি আমায় ধর।

ভালুকী। কেন ধরবো কেন?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি, একটু শোবো।

ভালুকী। তবে মরো।

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনে, ঘুমবো।

ভালুকী। যজমান বাড়ি যাবে না?

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি, ডোরা টান্‌বো।

ভালুকী। পোড়ার মুখো! দু থাবা মৌও খেয়ে চেত্তা মার্‌বি।

ভালুক। তা বল্‌তে পারিনি, কুস্তী লড়বো!

ভালুকী। কুস্তী লড়বি কার সঙ্গে?

ভালুক। তা বলতে পারিনি, নাচ্‌বো।

ভালুকী। নাচ্‌বি কার সঙ্গে?

ভালুক। তা বল্‌তে পারি,—তোমার সঙ্গে, তোমার সঙ্গে, তোমার সঙ্গে।

উভয়ে গীত।

নাচি ঠুম্‌কী ঠুম্‌কী নাচি ঠুম্‌কী ঠুম্‌কী।
আমরা চাঁদমুখো আর চাঁদমুখী॥
পিরীত মাখামাখি, দুজনে মেতে থাকি,
জ্বরে ধুঁকী, আর মৌও চাকি,
পিরীত বাধ্‌লো যখন আমরা খোকা খুকী॥
ভোরে হাওয়া খেতে, পিরীত বাধ্‌লো পথে,
এখন জানাজানি ছিল লুকো লুকী।}}